Big Breaking : প্রয়াত পূর্ব মেদিনীপুর জেলা পরিষদের সভাধিপতি দেবব্রত দাস, শোকাহত রাজনৈতিক মহল ! - Newz Bangla

Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

Big Breaking : প্রয়াত পূর্ব মেদিনীপুর জেলা পরিষদের সভাধিপতি দেবব্রত দাস, শোকাহত রাজনৈতিক মহল !

পূর্ব মেদিনীপুর.ইন : চলে গেলে পূর্ব মেদিনীপুর জেলা পরিষদের সভাধিপতি দেবব্রত দাস (৫৫)। আজ বিকেলে তমলুক জেলা সদর হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। হাসপাতাল সূত্রে খবর, গলায় ক্যানসার আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি…

 


পূর্ব মেদিনীপুর.ইন : চলে গেলে পূর্ব মেদিনীপুর জেলা পরিষদের সভাধিপতি দেবব্রত দাস (৫৫)। আজ বিকেলে তমলুক জেলা সদর হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। হাসপাতাল সূত্রে খবর, গলায় ক্যানসার আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি। আজ আচমকাই তাঁর অবস্থার অবনতি হলে তড়িঘড়ি তাঁকে তমলুক জেলা সদর হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়। বিকেল নাগাদ সেখানেই তাঁর মৃত্যু হয়েছে। তিনি দিঘার পদিমা গ্রামের বাসিন্দা। দেবব্রতর পরিবারে তাঁর স্ত্রী ও এক ছেলে বর্তমান।

এই ঘটনার খবর ছড়িয়ে পড়তেই শোকের ছায়া নেমে এসেছে সর্বত্র। দীর্ঘ ১৫ বছর রামনগর ১ ব্লকের সভাধিপতি ছিলেন দেবব্রত। সেখানে তাঁর কর্মকান্ড ব্যাপক সাড়া ফেলে। সেই সময় সেরা ব্লকের শিরোপা জিতেছিল রামনগর ১ ব্লক। এরপর দেবব্রতকে জেলা পরিষদের আনা হয়। প্রথমে তিনি ছিলেন জেলা পরিষদের মৎস্য কর্মাধ্যক্ষ। এরপর তিনি সরাসরি জেলা পরিষদের সভাধিপতির আসনে বসেন।

রাজনীতিবিদ হিসেবে দেবব্রত বরাবরই নরম স্বভাবের মানুষ ছিলেন। তিনি বরাবরই বিতর্কের বাইরেই থাকতেন। তবে সম্প্রতি জেলা পরিষদের তরফে ক্যান্টিনে বিপুল টাকার বকেয়ার ঘটনা প্রকাশ্যে আসায় সমালোচনা শুরু হয়েছিল। সূত্রের খবর, দেবব্রত দীর্ঘদিন ধরেই গলার ক্যানসারে আক্রান্ত ছিলেন। মাঝে বেশ কিছু সময় চিকিৎসার জন্য ভীনরাজ্যে কাটিয়েছেন তিনি। তবে শেষ পর্যন্ত এই মারণ রোগের কাছে আত্মসমর্পণ করতে হল তাঁকে।

সভাধিপতির শারীরিক অবস্থার অবনতির খবর পেয়ে তমলুক জেলা হাসপাতালে ছুটে যান জেলা তথা রাজ্যের দুই মন্ত্রী তমলুকের বিধায়ক তথা রাজ্যের সেচ ও জলপথ দপ্তর-এর ভারপ্রাপ্ত মন্ত্রী  সৌমেন  মহাপাত্র এবং মৎস্যমন্ত্রী অখিল গিরি ও তাম্রলিপ্ত পৌরসভার কাউন্সিলর চঞ্চল খাঁড়া সহ অন্যান্য তৃণমূল নেতৃত্বরা।

মোবাইলে নিউজ আপডেটপেতে হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যোগ দিন, ক্লিক করুন Whatsapp

No comments