Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

দেশে একদিনে করোনা আক্রান্ত প্রায় ৯৭ হাজার, মুম্বাইয়ে সাড়ে ৫৫ হাজার, বাংলায় ২ হাজার !

 


নিউজবাংলা ডেস্ক : আছড়ে পড়েছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। প্রতিদিনের হিসেবে গত ২৪ ঘন্টায় গোটা দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাড়াল প্রায় ৯৬,৯৮২টি। যার মধ্যে বাংলায় করোনা আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ২,০৫৮ জন। করোনার জেরে গোটা দেশে একদিনে মৃত্যু হয়েছে ৪৪৬ জনের।

এর জেরে এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল প্রায় ১,৬৫,৫৪৭ জন। এ রাজ্যের স্বাস্থ্য বুলেটিনে পাওয়া খবর অনুযায়ী গত ২৪ ঘন্টায় রাজ্যে মোট ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এরফলে শুধু এই রাজ্যে করোনা সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১০,৩৫৫ জন।

তবে করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে সব থেকে নাজেহাল হচ্ছে মহারাষ্ট্র। এই রাজ্যে গত ২৪ ঘন্টায় ৫৫,৪৬৫ জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়েছে। এর জেরে শুধু মহারাষ্ট্রে করোনায় আক্রান্তের পরিমান বেড়ে হয়েছে প্রায় ৩১,১৩,৩৫৪ এবং গত ২৪ ঘন্টায় মহারাষ্ট্রে মৃত্যু হয়েছে প্রায় ২৯৭ জনের। এরফলে এই রাজ্যে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৫৬,৩৩০ জন।

পরিসংখ্যান বলছে, ভারতে করোনা সংক্রমণের গন্ডি ২০ লাখে ছুঁয়েছিল গতবছরের ৭ আগষ্ট। এরপর মাত্র কিছুদিনের ব্যবধানে ২৩ আগষ্ট সংক্রমণের পরিমান ৩০ লাখে পৌঁছে যায়। ৫ সেপ্টেম্বর সেই সংক্রমণের পরিমান দাঁড়ায় ৪০ লাখ। ১৬ সেপ্টেম্বর ৫০ লাখের গন্ডি ছুঁয়ে ফেলে করোনা সংক্রমণ। ২৮ সেপ্টেম্বর ৬০ লাখ, ১১ অক্টোবর ৭০ লাখ, ২৯ অক্টোবর ৮০ লাখ, ২০ নভেম্বর ৯০ লাখ এবং ডিসেম্বরের ১৯ তারিখে সংক্রমণের পরিমান ১ কোটির ঘরে পৌঁছে যায়।

ICMR-এর একটি সূত্রে জানা গেছে, ৫ এপ্রিল পর্যন্ত গোটা দেশে প্রায় ২৫,০২,৩১,২৬৯ জনের করোনা পরীক্ষা হয়েছে। যার মধ্যে কেবলমাত্র ৫ এপ্রিলেই ১২,১১,৬১২ জনের করোনা পরীক্ষা হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, করোনা রোগের বিরুদ্ধে লড়াই চালাতে হলে করোনা পরীক্ষায় জোর বাড়াতে হবে। ইতিমধ্যে গোটা দেশে ধাপে ধাপে করোনা টিকাকরণ নেওয়া শুরু হয়ে গেলেও সংক্রমণের হার যেভাবে বাড়ছে তার জেরে প্রশাসনের কপালে চিন্তার ভাঁজ দেখা দিয়েছে।

সূত্রের খবর, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে আগামী ৮ এপ্রিল দেশজুড়ে মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কিভাবে করোনার ধাক্কা সামলানো যায় তা নিয়েই নতুন করে পরিকল্পনা করতে উদ্যোগী হয়েছে কেন্দ্রের সরকার।

 

No comments