Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

৩৫০ ফুট বাই ১০০ ফুট সামিয়ানায় আজ মহিষাদলে শুভেন্দুর সভা !

মহিষাদল, পূর্ব মেদিনীপুর : মহিষাদল রাজ বাড়ির ছোলাবাড়ি। এখানেই আজ তৈরি হয়েছে প্রায় ৩৫০ ফুট বাই ১০০ ফুটের একটি সামিয়ানা। ভেতরে রয়েছে মস্তবড় একটি স্টেজ, আর সামনে সার দিয়ে সাজানো কয়েক হাজার প্লাস্টিকের চেয়ার। মন্ত্রীত্ব ছাড়ার পর এই জ…

মহিষাদল, পূর্ব মেদিনীপুর : মহিষাদল রাজ বাড়ির ছোলাবাড়ি। এখানেই আজ তৈরি হয়েছে প্রায় ৩৫০ ফুট বাই ১০০ ফুটের একটি সামিয়ানা। ভেতরে রয়েছে মস্তবড় একটি স্টেজ, আর সামনে সার দিয়ে সাজানো কয়েক হাজার প্লাস্টিকের চেয়ার। মন্ত্রীত্ব ছাড়ার পর এই জায়গাতেই প্রথম জনগনের সম্মুখে হাজির হচ্ছেন রাজ্য রাজনীতিতে এই মুহূর্তের সব থেকে চর্চিত রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব শুভেন্দু অধিকারী।

তবে এই সভা মোটেই কোনও রাজনৈতিক সভা নয়। সদ্য প্রয়াত মহিষাদলের স্বাধীনতা সংগ্রামী রণজিৎ বয়ালের স্মরণ সভা আয়োজিত হচ্ছে এখানে। শুভেন্দুর ঘনিষ্ঠ মহলের খবর, এই সভাতে কোনও রাজনৈতিক মন্তব্য করবেন না তিনি। তবুও এই সভার দিকেই নজর গোটা রাজ্যের। যার পেছনে অনেকগুলো কারণ রয়েছে বৈকি।

প্রথমতঃ ছোলাবাড়ি প্রাঙ্গনে এমন বিশালাকায় সামিয়ানা কোনওদিনই দেখেননি এলাকার বাসিন্দারা। স্থানীয় পূর্বশ্রীরামপুর গ্রামের বাসিন্দা ৮২ বছরের প্রবীণ অনিল কুমার মহাপাত্র অকপটে জানিয়ে দিলেন, তাঁর গোটা জীবনে ছোলাবাড়িতে এতবড় সামিয়ানা দেখেননি কখনও। নিজেকে শুভেন্দুর অনুরাগী পরিচয় দিয়ে ওই প্রৌঢ় জানালেন, তিনি শুভেন্দুকে লড়াকু বলেই জানেন। তাই রবিবার শুভেন্দুকে দেখার জন্য সভায় সামনের সারিতেই বসার চেষ্টা চালাবেন তিনি।

সভায় কেমন জনসমাগম হবে? আয়োজকদের একাংশের খবর, বর্তমানে এই সভাস্থলে প্রায় ৫ হাজার চেয়ার রাখা হয়েছে। সব মিলিয়ে কমপক্ষ্যে ১৫ থেকে ২০ হাজার মানুষের সমাগম হবে বলে আশাবাদী তাঁরা। ইতিমধ্যে সভায় আমন্ত্রিতদের কার্ড বিলি করা হয়েছে। যদিও সেই কার্ড বিলির দায়িত্ব কোনও তৃণমূল নেতাকে দেওয়া হয়নি বলেই খবর। মঞ্চে থাকার জন্যও কোনও প্রথমসারির তৃণমূল নেতাকে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি বলেই খবর।

 এরই পাশাপাশি আরও একটা বিষয়ে সবার নজর থাকবে তা হল উপস্থিত অভ্যাগতদের দিকে। শুভেন্দুবাবু মন্ত্রিত্ব ছাড়লেও তৃণমূল দল থেকে ইস্তফা দেননি। কিন্তু ইতিমধ্যে জেলা তৃণমূল নেতৃত্বের বিভাজন স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে শুভেন্দুবাবুকে কেন্দ্র করে। সবাই ধরেই নিয়েছেন, শুভেন্দুবাবুর পাশে থাকা মানেই তৃণমূলের বি টিমের তকমা পাওয়া। শনিবার মহিষাদলে তৃণমূলের একটি জরুরি বৈঠক হয়েছে বলে সূত্রের খবর। সেই বৈঠকে কি সিদ্ধান্ত হয়েছে তা স্পষ্ট না হলেও শুভেন্দুবাবুর সভায় স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব উপস্থিত থাকেন কিনা সেটাই এখন দেখার।

No comments