Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

অবশেষে NCB ঘেরাটোপে সুশান্তের প্রেমিকা রিয়া, #JusticeForSSR ওয়ারিয়র্সদের মধ্যে দেদার খুশির হাওয়া !

 


নিউজ বাংলা ডেস্ক : সম্ভাবনা প্রবল, শুধু রূপায়ণের অপেক্ষা ছিল। অবশেষে তা সম্পন্ন হল। পর পর তিনদিন জেরার পর মঙ্গলবার মাদককাণ্ডের জেরে গ্রেফতার হলেন রিয়া চক্রবর্তী। NCB জেরার মুখে পড়ে আটঘন্টা পর গ্রেফতার করল আধিকারিকরা। রিয়ার স্বাস্থ্য পরীক্ষার পর তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সেইসাথে করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই খুশির ঝড় বয়ে গিয়েছে #JusticeForSSR ওয়ারিয়র্সদের মধ্যে।

টানা তিনদিনের জেরায় রিয়া একাধিকবার মাদক নেওয়ার বিষয়ে স্পষ্ট কোনো মত দিতে পারেননি। তাই সন্তোষজনক উত্তর না পেয়েই একাধিকবার জেরা করা হচ্ছিল। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম এবং এনসিবির জেরার প্রথম পর্বে তিনি বলেছেন মাদক নিতেন না। এদিন অবশ্য আধিকারিকদের জেরার মুখে কার্যত হার স্বীকার করে মেনে নেন চরম সত্যিটা। তিনি মাদক নিতেন সেই কথা স্পষ্ট জানিয়েছেন এনসিবিকে।

সুশান্ত মৃত্যুকান্ডে বেশ কিছুদিন ধরেই মাদক যোগের যে তত্ত্ব উঠে এসেছিল। তাতে সন্দেহের তালিকায় প্রথম নাম এসেছিল রিয়া চক্রবর্তীর। পরে রিয়ার ভাই শৌভিক চক্রবর্তী এবং সুশান্তের হাউজ ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডাকে গ্রেফতার পর জানা যায় রিয়ার কথাতেই কারবারিদের কাছ থেকে মাদক আনা হত।

তারপর গত রবিবার থেকে এদিন মঙ্গলবার পর্যন্ত দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদের পর অবশেষে গ্রেফতার করা হল রিয়াকে। এখনও পর্যন্ত এই মাদককাণ্ডে ৯ জনকে গ্রেফতার করেছে এনসিবি আধিকারিকরা। ইতিমধ্যেই রিয়ার গ্রেফতারির খবর পাঠানো হয়েছে বাবা ইন্দ্রজিৎ চক্রবর্তী এবং মা সন্ধ্যা চক্রবর্তীকে। মূলত রিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদের সময় থেকেই গ্রেপ্তারির প্রসঙ্গ উঠেছিল।


 

সুশান্তের বাড়ির ছাদে ভাই শৌভিক এবং ম্যানেজার স্যামুয়েলের সাথে মাদক নেওয়া। একাধিক মাদক পাচারকারীর সাথে সম্পর্ক। এই নিয়ে বিস্তর জলঘোলা বাড়ছিল। আগামীকাল বুধবার মাদককাণ্ডে গ্রেফতার হওয়া অন্য অভিযুক্তদের সাথে তাকে আদালতে তোলা হবে।

তবে ইতিমধ্যেই এনসিবি এই মাদককান্ডে শৌভিক এবং স্যামুয়েলকে জিজ্ঞাসাবাদ করে চাঞ্চল্যকর তথ্য হাতে পেয়েছে যার কারণেই বলিউডের একাধিক নাম তালিকাভুক্ত করেছে তারা। খুব শীঘ্রই সেই তালিকায় থাকা ব্যক্তিদের জিজ্ঞাসাবাদ পর্ব শুরু হবে সূত্রের খবর। মূলত সুশান্তের বাড়ি, ফোন, রিয়ার ফোন, ল্যাপটপ, হার্ড ডিক্স একাধিক নথি পর্যবেক্ষণ করে নানা তথ্য জোগাড় করে তদন্ত শুরু করেছিল এনসিবি। 



 

তাই রিয়ার মন গড়া মিথ্যে কথা কার্যত ধোপে টিকলো না এনসিবির জেরায়। তবে সুশান্ত মৃত্যু নেপথ্যে আত্মহত্যার তত্ত্ব উড়িয়ে খুনের তদন্ত করছে সিবিআই। আর্থিক কেলেঙ্কারি দিকটিও খতিয়ে দেখছে ইডি। তবে রিয়ার বিরুদ্ধে ওঠা একাধিক অভিযোগে যে তার গ্রেফতারির সম্ভাবনা পাকা ছিল তা মনে করছেন অনেকেই।

#newzbangla #BengaliNews #JusticeForSSR #নিউজবাংলা #Newsbangla #BengalUpdate #SushantSingRajput #RiyaChakraborty

 

No comments