Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

অজানা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে কাঁথির মেধাবী ছাত্রের মর্মান্তিক মৃত্যু!

নিউজ বাংলা, কাঁথি : কাঁথি হাইস্কুলের প্রাক্তন ছাত্র সৌগত মাইতি। পড়াশোনাতে অত্যন্ত মেধাবী। সল্টলেক আই এম ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং-এর এম.টেকের ছাত্র ছিল। সম্প্রতি এক অজানা রোগে ভুগছিল সে। এরপর গতকাল দুপুরে…

 

নিউজ বাংলা, কাঁথি : কাঁথি হাইস্কুলের প্রাক্তন ছাত্র সৌগত মাইতি। পড়াশোনাতে অত্যন্ত মেধাবী। সল্টলেক আই এম ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং-এর এম.টেকের ছাত্র ছিল। সম্প্রতি এক অজানা রোগে ভুগছিল সে। এরপর গতকাল দুপুরে আচমকাই অসুস্থ হয়ে মৃত্যু হয়েছে তার। কাঁথি শেরপুর এলাকার এতোয়াড়িবারের বাসিন্দা সৌগত(২৪)। সল্টলেকের ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে পড়াশোনার ক্ষেত্রে বাবা মায়ের সাথেই সল্টলেকে একটি আবাসনে থাকত সে। পরিবার সূত্রে খবর, লকডাউনের কারণে কলকাতা থেকে কাঁথিতে ফিরেছিলেন সকলে।
এরপর আনলক প্রথম পর্যায়ে জুন মাসের গোড়ার দিকে বাবা মায়ের সাথে কলকাতায় ফিরে যায় সৌগত। কলকাতায় ফেরার বেশ কিছুদিন পর থেকেই শারীরিকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ে সে। চিকিৎসার জন্য শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাকে। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে বিভিন্ন নার্সিংহোমে যোগাযোগ করা হয় ভর্তির জন্য। বেশ কয়েক দফায় তাকে বিভিন্ন নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়। বাবা গৌতম মাইতি এবং মা স্নিগ্ধ মাইতি জানান, তাদের সন্তান কোন রোগে আক্রান্ত সেই বিষয়টি চিহ্নিত করতে পারেননি কোন চিকিৎসক। সেই কারণে ছেলের শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটতে থাকায় বিভিন্ন হাসপাতাল থেকে নার্সিংহোমে স্থানান্তরের পরিকল্পনা নেওয়া হয়। রোগের উৎস না খুঁজে পাওয়ায় তার সঠিক চিকিৎসা সম্ভব হয়নি, আর সেকারণেই শনিবার দুপুরে তার মৃত্যু হয়। গৌতমবাবু বলেন, চিকিৎসকদের মন্তব্য অনুযায়ী তাদেরকে জানানো হয়, অজানা ভাইরাসের সংক্রমণে রক্তে হিমোগ্লোবিন তৈরি হচ্ছিল না তার ছেলের দেহে। তার কারণেই মৃত্যু। পেশায় গৃহশিক্ষক গৌতমবাবু তার স্ত্রী এবং পরিবার বহু কষ্ট করে সৌগতকে বাঁচাতে লড়াই করেছেন গত কয়েকদিন ধরেই। তবু ছেলে বাড়ি ফিরলনা। কলকাতায় মৃতদেহ সৎকার করা হয়।

No comments