Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

শুধু লকডাউন নয় কড়া কনটেনমেন্ট স্ট্র্যাটেজি চাই, জানালেন AIIMS ডিরেক্টর !

নিউজ বাংলা ডেস্ক: দেশের বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন সময়ে করোনার গ্রাফ কখনো ঊর্ধ্বমুখী কখনো নিম্নমুখী। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে শহরগুলোতে শুরু হয়েছে কড়া লকডাউন। এর মধ্যেই দেশের তিন শহর দিল্লী, মুম্বাই, আমেদাবাদে কমছে করোনা সংক্রমণ, জ…

নিউজ বাংলা ডেস্ক : দেশের বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন সময়ে করোনার গ্রাফ কখনো ঊর্ধ্বমুখী কখনো নিম্নমুখী। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে শহরগুলোতে শুরু হয়েছে কড়া লকডাউন। এর মধ্যেই দেশের তিন শহর দিল্লী, মুম্বাই, আমেদাবাদে কমছে করোনা সংক্রমণ, জানালেন AIIMS ডিরেক্টর রানদীপ গুলেরিয়া।

প্রতিনিয়ত করোনার দাপট বাড়ছে পশ্চিমবঙ্গ, তামিলনাড়ু, উড়িষ্যা, বিহার, অসমের মত একাধিক রাজ্যে। পাশাপাশি দেশের তিনটি রাজ্যে করোনা সংক্রমণ কম থাকায় কিছুটা স্বস্তির মুখ দেখছেন চিকিৎসাবিজ্ঞানীরা। করোনার লাগাম টানতে একমাত্র কড়া হাতে কনটেনমেন্ট জোনে বাড়তি নজরদারির কথাই বলছেন গবেষকরা।

AIIMS ডিরেক্টর রণদীপ গুলেরিয়া সংবাদ মাধ্যমে জানান, দেশের বিভিন্ন প্রান্ত বিভিন্ন সময়ে সংক্রমণের শীর্ষে পৌঁছাবে। যেমন আক্রান্তের নিরিখে সর্বোচ্চ স্থানে রয়েছে মুম্বাই। তারপর তামিলনাড়ু, দিল্লি,  আমেদাবাদেও ভয়াবহ আকার ধারণ করেছিল করোনা। কিন্তু দিল্লি, মুম্বাই এবং আমেদাবাদে সেই গ্রাফ শীর্ষে পৌঁছে এবার নিচে নামতে শুরু করেছে।

তিনি আরো জানান, কিছু কিছু জায়গায় করোনার সংক্রমণ কমে যাওয়ার সাথে সাথেই সেখানকার মানুষজন করোনাবিধি, স্বাস্থ্যসচেতনতা ভুলে মাস্ক না পরেই ভিড় জমাচ্ছেন পথে-ঘাটে। এরকারণেই ঘুরে আসছে সংক্রমণ। লকডাউনের মধ্যে থাকা সংক্রমণ বেশি রয়েছে এরকম অঞ্চল খুঁজে সেখানে কড়া কনটেনমেন্ট স্ট্র্যাটেজি দিয়েই মোকাবিলা করা যাবে করোনাকে।

লকডাউনের পাশাপাশি প্রয়োজনে সংক্রমিত অঞ্চলের বাড়িতে বাড়িতে বাড়তি নজরদারি চালানো। সংক্রমিত ব্যক্তিকে চিহ্নিত করা এবং সময়মত তাকে আইসোলেশনে পাঠানোর মত প্রক্রিয়াতেই করোনাকে রুখতে পারা সম্ভব।

#newzbangla #FightAgainstCovid19 #bengalinews #নিউজবাংলা #NationalNews #newsbangla #Covid19


No comments