Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

ছিলেন নেগেটিভ, মৃত্যুর পর হাতে এল করোনা পজিটিভ রিপোর্ট !

নিউজ বাংলা ডেস্ক : মৃত্যুর আগে যিনি ছিলেন করোনা নেগেটিভ তিনিই মৃত্যুর পর করোনা পজিটিভ হলেন। একই ব্যক্তির দুই রিপোর্ট নিয়েই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। এনআরএস এবং নাইসেডের রিপোর্টেই হতবাক মৃতের পরিবার। আসল রিপোর্ট কোনটা ? খবর জি ২৪ঘন্টা সূত…

নিউজ বাংলা ডেস্ক : মৃত্যুর আগে যিনি ছিলেন করোনা নেগেটিভ তিনিই মৃত্যুর পর করোনা পজিটিভ হলেন। একই ব্যক্তির দুই রিপোর্ট নিয়েই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। এনআরএস এবং নাইসেডের রিপোর্টেই হতবাক মৃতের পরিবার। আসল রিপোর্ট কোনটা ? খবর জি ২৪ঘন্টা সূত্রে।

এই প্ৰশ্ন এখন সুভাষগ্রামের সঞ্জয় সেন (৪৩) এর পরিবারের মুখেও। ঘটনার সূত্রপাত গত ২০ জুন, শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে সোনারপুর গ্রামীণ হাসপাতালে যান সঞ্জয়। প্রাথমিক চিকিৎসার পর বাড়ি ফিরে আসেন। পরদিন অবস্থার অবনতি হলে একাধিক বেসরকারি হাসপাতালে যান।

শেষে টালিগঞ্জের এমআর বাঙ্গুর হাসপাতালে যান সেখানেও তার করোনা রয়েছে কিনা, হাজারো প্রশ্ন আর টেস্টের পর হতাশ হয়েই বাড়ি ফেরেন। ২২ জুন আবার সোনারপুর হাসপাতালে গিয়ে শারীরিক অসুস্থতার কথা জানালে করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করে  নাইসেডে পাঠানো হয়।

সেইদিন দুপুরে অ্যাম্বুলেন্স করেই এনআরএসে পৌঁছন সঞ্জয়। সেখানেই ভর্তি নেওয়া হয় তাকে। শরীরে করোনার উপসর্গ দেখেই বিকেলে নমুনা সংগ্রহ করে এনআরএস কর্তৃপক্ষ ল্যাবে সেই নমুনার পরীক্ষা করে। পরদিন ২৩ জুন রিপোর্ট নেগেটিভ আসে এনআরএস সূত্রে। যেহেতু করোনা নেগেটিভ তাই সেদিন তাকে মেল মেডিসিন ওয়ার্ডে পাঠানো হয়।

সেই রাতেই অবস্থার অবনতি ঘটে সঞ্জয়ের। ডাক্তারি পর্যবেক্ষণের রেখেই সিসিইউ তে দ্রুত ট্রান্সফার করা হয়। ২৪ জুন পরিবারকে জানানো হয় সঞ্জয়ের অবস্থার দ্রুত অবনতি ঘটার পর মৃত্যু হয়েছে তার। সেদিন বিকেলেই ডেথ সার্টিফিকেট দিয়ে দেহ পরিবারের হাতে তুলে দেয় এনআরএস। শোকগ্রস্ত পরিবার এলাকার লোকজন, আত্মীয় পরিজন সহ সেই রাতেই সৎকারে করা হয়।

পরদিন অর্থাৎ ২৫ জুন সঞ্জয়ের বাড়িতে পৌঁছয়  স্বাস্থ্যকর্মীরা। তাদের তরফে জানানো হয়, নাইসেড সূত্রে সঞ্জয় করোনা পজিটিভ। তাই পুরো পরিবারের নমুনা সংগ্রহ করা হবে। এরপর দুই রিপোর্ট ঘিরে শুরু হয় চাঞ্চল্য। পরিবার সূত্রে জানান হয় কে ঠিক আর কে ভূল তার তদন্ত হোক। ইতিমধ্যেই মৃতের দাদার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। কিন্তু এই চারদিনে যে সংখ্যক মানুষজনের সংস্পর্শে সঞ্জয় এসেছিল তার কি সমাধান সূত্র? সেই প্রশ্নই উঠে আসছে বিভিন্ন মহলে।


No comments