Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

সোমবার থেকে স্কুলগুলো সম্পূর্ণ বন্ধ নাকি শিক্ষকদের হাজিরা দিতে হবে নিয়ম মেনে, তা নিয়ে শুরু জোরদার জল্পনা !



নিউজবাংলা ডেস্ক : দেশজুড়ে ক্রমাগত ছড়িয়ে পড়া করোনার প্রকোপ দেখে শনিবার এই ভাইরাসকে বিপর্যয় আখ্যা দিয়েছে কেন্দ্রের সরকার। এরপরেই বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রেস বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়ে দেন, আগামী ১৬ মার্চ থেকে ৩১ মার্চ পর্যন্ত রাজ্যের সমস্ত সরকার, সরকার পোষিত এবং বেসরকারী স্কুল সহ কলেজ, SSK, MSK বন্ধ "Closed" থাকবে। (রাজ্য সরকারের প্রেস বিজ্ঞপ্তি ও স্কুল শিক্ষা দফতরের নির্দেশের প্রতিলিপি দেখতে নীচে স্ক্রল করুন)




এরই মাঝে রাজ্যের স্কুল শিক্ষা দফতরের তরফ থেকে প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠানো হয়েছে নির্দেশিকা। যেখানে স্পষ্ট করে বলা হয়েছে, আগামী ১৬ মার্চ থেকে ৩১ মার্চ পর্যন্ত সরকারী বেসরকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলির ক্লাস স্থগিত "Classes Remain Suspended" থাকছে। এই নির্দেশ স্কুলে এসে পৌঁছানোর পরেই বিভ্রান্তি শুরু হয়েছে শিক্ষক মহলে।




একদিকে মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন, সাধারণ ভাবে শিক্ষকদের স্কুলে আসার প্রয়োজন নেই। তাঁরা বাড়িতে থেকেই প্রয়োজনীয় কাজ সারবেন। শুধুমাত্র উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার ডিউটিতে যে সমস্ত শিক্ষক ও শিক্ষা কর্মী যুক্ত তাঁরা পরীক্ষাকেন্দ্রে যাবেন।

কিন্তু স্কুল শিক্ষা দফতরের নির্দেশ হাতে পাওয়ার পর এই বিষয়ে নানান মত শোনা যাচ্ছে। অধিকাংস স্কুল শিক্ষকের দাবী, "Classes Remain Suspended" কথার অর্থ স্কুল পুরোপুরি বন্ধ নয়। সেক্ষেত্রে ছাত্রছাত্রীরা স্কুলে না গেলেও শিক্ষক, শিক্ষিকা বা শিক্ষাকর্মীদের স্কুলে যেতে হয়।



আজকের স্কুল শিক্ষা দফতরের নোটিশ দেখে শিক্ষক শিক্ষিকারা নিশ্চিত, স্কুলে তাঁদের হাজিরা দিতে হবে নিয়ম মেনেই। অনেকেই আবার মনে করছেন, মুখ্যমন্ত্রীর প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে স্কুল বন্ধ থাকার কথা বলা হয়েছে। তাহলে শিক্ষক শিক্ষিকাদের স্কুলে না গিয়ে বাড়িতে থেকেই কাজ সারতে পারবেন। তবে কোনটা ঠিক তা স্পষ্ট করে জানাতে পারেননি কেউই। এরজন্য সোমবার পর্যন্ত অপেক্ষা করতেই হবে।




করোনার জেরে রাজ্য সরকারের প্রেস বিজ্ঞপ্তি  


মাধ্যমিক স্কুল শিক্ষা পর্ষদের বিজ্ঞপ্তি


উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা দফতরের বিজ্ঞপ্তি


No comments