Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

পুলিশের বন্দুক ছিনিয়ে হামলা চালায় ৪ ধর্ষক, তারই জবাবে এনকাউন্টার দাবী হায়দ্রাবাদ পুলিশের !



নিউজবাংলা ডেস্ক :  হায়দ্রাবাদে ৪ ধর্ষক শিবা, নবীন, আরিফ এবং কেশবুহকে বাধ্য হয়েই গুলি চালাতে হয়েছিল বলে দাবী জানিয়েছেন এনকাউন্টারে যুক্ত পুলিশ আধিকারীকরা। যদিও এই ঘটনায় ইতিমধ্যে ম্যাজিস্ট্রেট পর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে স্থানীয় প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে।



কিভাবে ঘটেছিল গোটা ঘটনা?
পুলিশের দাবী, ভোরের দিকে ঘটনার পুনঃনির্মাণ করার জন্য পুলিশ গাড়িতে করে অভিযুক্তদের ৪৪নং জাতীয় সড়কের ব্রিজের নীচে নিয়ে যায়। ঠিক যেখান থেকে নির্যাতিতা চিকিৎসক তরুণীর পুড়ে যাওয়া দেহাংশ উদ্ধার হয়েছিল। কিভাবে সেদিন চিকিৎসককে মেরে পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছিল সেটি পুনরায় করে দেখাতে বলা হয় অভিযুক্তদের।



৪ অভিযুক্তকে গাড়ি থেকে নামিয়ে দেওয়ার কিছু সময় ঘটনার মূল অভিযুক্ত আরিফ প্রথমে একটি বড়সড় পাথর তুলে নিয়ে সামান্য দূরে থাকা পুলিশ অফিসারকে ছুঁড়ে মারে। কিছু বুঝে ওঠার আগেই ওই পুলিশ অফিসার পড়ে যান।




তখনই তাঁর পাশে থাকা অপর অভিযুক্ত পুলিশের বন্দুক তুলে নিয়ে গুলি চালাতে শুরু করে। আকস্মিক ঘটনায় হতচকিত পুলিশ প্রতিরোধ করার আগেই ৪ অভিযুক্ত ব্রিজের নীচ থেকে ছুটে পাশের ঝোপঝাড়ে ভর্তি মাঠের দিকে ছুটতে শুরু করে। এই ঘটনায় ২ পুলিশ অফিসার জখম হয়েছে বলেও প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে।

এরপরেই পুলিশ অভিযুক্তদের পেছনে তাড়া করে এগিয়ে যায়। এবং মাঠের মধ্যে একে একে ৪ অভিযুক্তকেই গুলি করে মারে বলে দাবী জানিয়েছে হায়দ্রাবাদ পুলিশ। শেষ পর্যন্ত পাওয়া খবরে জানা গেছে, ওই কালপ্রিটদের মৃতদেহগুলি এখনও ঘটনাস্থলেই পড়ে রয়েছে।




No comments