Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

বাজি ফাটাতে গিয়ে বিপত্তি, তুবড়ি ফেটে গলার নলি কেটে শিশুর মৃত্যু, আহত আরও ২ শিশু !

নিউজবাংলা ডেস্ক, কলকাতা : বাজি পোড়ানোর সময় কিছুটা সাবধানতা যে অবলম্বন করা অত্যন্ত জরুরি তা বারে বারেই প্রচার করা হয় বিভিন্ন মহল থেকে। সরকারী, বেসরকারী বিভিন্ন উদ্যোগেই প্রচার করা হয় বাজি পোড়ানোর সময় বাচ্চাদের যতটা সম্ভব দূরে সরিয়…



নিউজবাংলা ডেস্ক, কলকাতা : বাজি পোড়ানোর সময় কিছুটা সাবধানতা যে অবলম্বন করা অত্যন্ত জরুরি তা বারে বারেই প্রচার করা হয় বিভিন্ন মহল থেকে। সরকারী, বেসরকারী বিভিন্ন উদ্যোগেই প্রচার করা হয় বাজি পোড়ানোর সময় বাচ্চাদের যতটা সম্ভব দূরে সরিয়ে রাখা উচিত।



কিন্তু সেই সাবধানবানীকে থোড়াই কেয়ার করেন আম আদমীরা। পাড়ায় পাড়ায় অলিতে গলিতে কালী পুজোর আগের রাত থেকেই চলছে অনন্য উন্মাদনা। কিন্তু এমনই এক উন্মাদনা কেড়ে নিল ছোট্ট এক শিশুর প্রাণ। নিরীহ শিশুটির অপরাধ ছিল মা, ঠাকুমাদের সঙ্গে দাঁড়িয়ে থেকে তারিয়ে তারিয়ে বাজি পোড়ান উপভোগ করা।
এমনই একটি মাটির তুবড়িতে আগুন দেওয়ার পর সবাই যখন অপেক্ষা করছিল আলোর ফুলকি দেখার জন্য ঠিক সেই সময় প্রচন্ড শব্দে ফেটে যায় তুবড়িটি। আর তুবড়ির মাটির টুকরো ছিটকে এসে লাগে আশেপাশে দাঁড়ানো বেশ কয়েকজন শিশুর গায়ে।



যার মধ্যে একটি টুকরো সোজা এসে এক শিশুর নলিতে গেঁথে বসে যায়। আর ঘটনাস্থলেই মারাত্মক রক্ত ক্ষরণের মধ্যেই ছটফট করতে করতে শিশুটির মৃত্যু হয়। ঘটনাস্থল কলকাতার বেহালার শিলপাড়া এলাকায়। মৃত শিশুটির নাম আদি দাস (৫ বছর ৫ মাস)। এছাড়াও আরও ২টি শিশু জখম হয়েছে বলে জানা গেছে।




ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী শুভঙ্কর পাত্র জানিয়েছেন, সবাই জড়ো হয়ে বাজি ফাটাচ্ছিল। ঠিক সেই সময় প্রচন্ড শব্দে তুবড়িটি ফেটে যায়। আর তুবড়ির টুকরো ছিটকে এসে আদি'র গলায় গেঁথে যায়। গলগল করে রক্ত বের হতে হতে সেখানেই শিশুটি ঝিমিয়ে যায়। পরে স্থানীয় বিদ্যাসাগর হাসপাতালে নিয়ে গেলে শিশুটিকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা।
ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ তৎপর হয়ে ওঠে। ওই বাজি বিক্রেতাকে পুলিশ ইতিমধ্যে আটক করেছে। পাশাপাশি বাজি ফাটানোর আগে আরও বেশী সতর্ক হওয়ার জন্যও আবেদন জানানো হয়েছে পুলিশের তরফ থেকে।



No comments