Page Nav

HIDE

Post/Page

Weather Location

Breaking !

latest

পঞ্চায়েত সমিতির স্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষের দোকানেই মিলল চোলাই তৈরির বিপুল কাঁচামাল !



নিউজবাংলা ডেস্ক, পূর্ব মেদিনীপুর : একজন স্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষের বিরুদ্ধেই চোলাইয়ের কাঁচামাল সরবরাহের গুরুতর অভিযোগ উঠল পূর্ব মেদিনীপুরে। মঙ্গলবার জেলার নন্দকুমার ব্লকের স্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষ গৌতম সাহু'র দোকানে অভিযান চালিয়ে বেশ কয়েক লক্ষ টাকার চোলাইয়ের কাঁচামাল উদ্ধার করেছে আবগারী দফতর।



চন্ডীপুর রেঞ্জের ডেপুটি এক্সাইজ কালেক্টার সৈয়দ মালেকুজ্জামান জানিয়েছেন, গৌতম সাহু'র দোকান থেকে ৪৬০ টিন চিটে গুড় যার পরিমান সাড়ে ১১টন এবং অ্যামোনিয়াম ক্লোরাইডের বাট ৫পেটি যেগুলি চোলাই তৈরির কাজে অবশ্যই লাগে। এই মালপত্রের বাজার দর বেশ কয়েক লক্ষ টাকা বলে জানিয়েছেন তিনি।

সৈয়দ মালেকুজ্জামান বলেন, দীর্ঘদিন ধরে নজরদারী চালানোর পরেই আজকের অভিযান চালানো হয়েছে। এই অভিযানে চন্ডীপুরের পাশাপাশি মহিষাদল এবং হলদিয়ার আবগারী অফিসারদেরও সামিল করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।



তাঁর মতে, অধিক পরিমানে চিটেগুড় মজুদ করতে গেলে উপযুক্ত সরকারী লাইসেন্স দরকার হয়। কিন্তু সবকিছুকে তোয়াক্কা করেই গৌতম সাহু তাঁর দোকানে কোটি কোটি টাকার কারবার শুরু করেন।

দেখুন ভিডিওটি-


বিজেপির জেলা কমিটির সদস্য চন্দন কুমার বারিকের অভিযোগ, একজন স্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষ দিনের পর দিন ক্ষমতার আড়ালে কিনা চোলাইয়ের কাঁচামাল সরবরাহ করছে। এর থেকে লজ্জাজনক ঘটনা আর কিছুই হতে পারে না। অভিযুক্তের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী করেছেন তিনি।




অন্যদিকে নন্দকুমার পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি দীননাথ দাস জানিয়েছেন, স্বাস্থ্য কর্মাধ্যক্ষের চিটে গুড়ের ব্যবসা দীর্ঘদিনের। এই চিটেগুড় ফিসারীতে বিপুল পরিমানে ব্যবহার হয়। এর মধ্যে কোনও অন্যায় তো নেই। তবে তিনি যদি বেআইনি কাজ করে থাকেন তার বিরুদ্ধে আইন যথাযথ ব্যবস্থা নেবে। পাশাপাশি তিনি দোষী প্রমাণিত হলে দলও তাঁর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে বলে দাবী জানিয়েছেন তিনি।  



  ------- বিজ্ঞাপন -------

  ------- বিজ্ঞাপন -------

 ------- বিজ্ঞাপন -------


No comments